How to Add Fiverr payment method – withdraw money by Payoneer from Fiverr.com – Bangla Tutorial

How to Add Fiverr payment method - withdraw money by Payoneer from Fiverr.com - Bangla Tutorial

How to Add Fiverr payment method – withdraw money by Payoneer from Fiverr.com – Bangla Tutorial

 

হ্যালো বন্ধুরা আজকের এই পোস্টটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ এবং সেন্সিটিভ একটি পোষ্ট ।  আশা করি মনোযোগ দিয়ে কথাগুলো শুনবেন আর বোঝার চেষ্টা করবেন। যদি বুঝতে না পারেন কমেন্ট করে জানাবেন অথবা ফেসবুকে ইনবক্স করবেন ।  কিন্তু না বুঝে কখনোই কাজগুলো করতে যাবেন না।   তাহলে আপনার স্বাদের ফাইবার একাউন্ট এবং আপনার কষ্টে অর্জিত অর্থ সামান্য কারণে জলে যেতে পারে।

তাহলে আসুন এবার কাজের কথায়। 

ফাইবারে তিনভাবে পেমেন্ট মেথড এড করা যায় এবং তিন ভাবে পেমেন্ট উত্তোলন করা যায়। 

  1. পেপাল একাউন্ট
  2. ব্যাংক ট্রান্সফার
  3. ফাইবার রেভিনিউ কার্ড

পেপাল একাউন্ট এর মাধ্যমে এক ডলার হলেও আপনি টাকা Withdraw করতে পারবেন ।  ব্যাংক ট্রান্সফারের জন্য সর্বনিম্ন 20 ডলার ব্যালেন্স থাকতে হবে ।  আর ফাইবার রেভিনিউ কার্ডের মাধ্যমে আপনি সর্বনিম্ন পাঁচ ডলার হলে উইথড্র করতে পারবেন।

 প্রথম যে অপশনটি পেপাল একাউন্টের মাধ্যমে উইথড্র

পেপাল ব্যবহার করে শুধু ফাইবার নয় অনলাইনে যে কোন পেমেন্ট আদান-প্রদান করা সবচাইতে সহজ ।

কিন্তু এটি আমরা আপাতত ব্যবহার করব না ।  কারণ বাংলাদেশ থেকে কোন প্রকার পেপাল অ্যাকাউন্ট বৈধ নয় ।  কাজেই এই অ্যাকাউন্ট যদি কেউ খুলে থাকেন কোন মাধ্যমে, টেকনিক করে, চালাকি করে , তারপরও এটি ব্যবহার করব না ।  কারণ যে কোন মুহূর্তে পেপাল একাউন্ট সাসপেন্ড হয়ে যেতে পারে ।  তবে যদি কখনো বাংলাদেশে পেপাল বৈধ করে দেয় তখন ব্যবহার করব, আপাতত একদম স্টপ।

 

দ্বিতীয়তঃ ব্যাংক ট্রান্সফার

ব্যাংক ট্রান্সফারের মাধ্যমে পেমেন্ট নিতে গেলে আমরা দুই ভাবে ব্যাংক অ্যাকাউন্টের তথ্য যুক্ত করতে পারি

নাম্বার 1 আমার কোন পেওনার একাউন্ট নেই,

সে ক্ষেত্রে আমি এই বাটনে ক্লিক করে সরাসরি পেওনার এর ওয়েবসাইটে চলে যাব ।  গিয়ে পেওনার সাইন আপ করব এবং নতুন একটি পেওনার একাউন্ট খুলে নেব ।  তারপর পেওনার একাউন্ট এ আমার যাবতীয় ব্যাংক অ্যাকাউন্টের তথ্য যুক্ত করব ।  তিন থেকে সাত দিনের মধ্যে পেওনার একাউন্ট ভেরিফাইড হবে ।  ভেরিফাইড হওয়ার জন্য পেওনার থেকে মেইল করা হবে যাবতীয় তথ্য চেয়ে । যেমন

  • জাতীয় পরিচয় পত্রের ছবি
  • জাতীয় পরিচয় পত্র না থাকলে পাসপোর্ট অথবা ড্রাইভিং লাইসেন্সের ছবি
  • একাউন্ট কারীর ছবি
  • ব্যাংক স্টেটমেন্ট

যত দ্রুত সম্ভব উপরোক্ত তথ্যগুলো পেওনার একাউন্ট লগইন করে সাবমিট করতে হবে । কোথায় সাবমিট করতে হবে সেটি পাওয়ার জন্য তাদের দেয়া মেইলে লিংক থাকবে সেটিতে ক্লিক করব।

 

  • অবশ্যই মনে রাখব কোন প্রকার ফেক তথ্য দেয়া যাবে না
  • পাসপোর্ট, ড্রাইভিং লাইসেন্স অথবা  জাতীয় পরিচয় পত্রে যে নাম থাকবে ঠিক সেই নাম দিয়ে পেওনার একাউন্ট সাইন আপ করতে হবে

 

আমার কাছে সবচাইতে এই পদ্ধতিটি সেরা এবং লাভজনক এভাবে পেমেন্ট মেথড এড করলে টাকা উইথড্র দিলে টাকা Payoneer Account  এ জমা না হয় সরাসরি ব্যাংকে চলে যাবে শুধুমাত্র ট্রানজেকশন হিসেবে Payoneer একাউন্টে দেখতে পাওয়া যাবে

বড় সুবিধা  হচ্ছে এর জন্য পেওনার কে  বাৎসরিক কোন ফি দিতে হবে না

শুধুমাত্র প্রতিবার ট্রানজেকশন এর জন্য ওনার অথবা ফাইবার একটি কেটে নিবে

 

 

নাম্বার 2 আমার একটি পেওনার একাউন্ট আছে আগে থেকেই।

এক্ষেত্রে ব্যাংক ট্রান্সফার বাটনটিতে ক্লিক করে পেওনার এর ওয়েবসাইটে গিয়ে শুধুমাত্র পেওনার একাউন্ট লগইন করতে হবে।  এর ফলে অটোমেটিক ফাইবার এর সঙ্গে যুক্ত হয়ে যাবে । নতুন করে কোনো ভেরিফিকেশন করতে হবে না । যদি আগেই ভেরিফিকেশন করা থাকে।

এক্ষেত্রে টাকা উইথড্র করার সময় এই বাটনে ক্লিক করলে টাকা ব্যাংকে না গিয়ে পেওনার একাউন্ট জমা হবে।  সেখান থেকে আপনি ব্যাংকে ট্রান্সফার করতে পারবেন।

আর এই একাউন্টে যদি আপনি পেওনার কার্ড ব্যবহার না করেন । তাহলে আপনাকে কোন বাৎসরিক চার্জ দিতে হবে না । শুধুমাত্র ট্রানজেকশন ফি দিতে হবে প্রতিবার । তবে যদি কার্ড ব্যবহার করেন প্রতিবছর আপনাকে 29 ডলার ফি দিতে হবে ।

 

তৃতীয় পদ্ধতি ফাইবার রেভিনিউ কার্ড

এই বাটনে ক্লিক করে আপনার আগের পেওনার একাউন্ট থাকলে সেটি যুক্ত করতে হবে । অথবা নতুন একাউন্ট সাইন আপ করতে হবে   । এক্ষেত্রে আপনার অবশ্যই পেওনার মাস্টার কার্ড থাকতে হবে এবং প্রতি বছর 29 ডলার সার্ভিস চার্জ দিতে হবে ।

 

বিশেষ দ্রষ্টব্য

  • উপরের বাটন গুলোতে ক্লিক করে সরাসরি পেওনার একাউন্ট এ প্রবেশ করা না গেলে, অবশ্যই আপনার মেইল চেক করবেন । যে ইমেইল দিয়ে ফাইবার একাউন্ট খুলেছেন সেই মেইলে তারা কিছুক্ষণের মধ্যে পেওনার একাউন্টে যাওয়ার জন্য লিংকে দিয়ে দিবে । শুধুমাত্র সেই লিংক ব্যবহার করেই পেওনার একাউন্ট খুলতে হবে । অথবা আগের পেওনার একাউন্ট যুক্ত করতে হবে।

 

  • এই পেমেন্ট মেথড যেকোনো সময় তাদের নিয়ম নীতি পরিবর্তন সংযোজন হতে পারে এটা মনে রাখবেন।

 

আপনাদের সুবিধার্থে নিচে একটি ভিডিও টিউটোরিয়াল দেয়া হল । আশা করি,  পোস্ট পড়ে যদি বুঝতে না পারেন,  তাহলে ভিডিওটি দেখে সহজে বুঝে যাবেন।  আর হ্যাঁ এই ভিডিওটি ভালো লাগলে লাইক কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না । ধন্যবাদ সবাইকে । ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন , নিরাপদ থাকবেন,  হ্যাপি ফ্রিল্যান্সিং !!

 

Hello, I'm Kanay Lal. I'm a professional Freelancer as a Graphics Designer, Web Designer and Online Marketer since 2011.

Share

Leave a Comment

%d bloggers like this: